সাহিত্য পত্রিকা-ই বলা যেতে পারে...

অরিত্র সান্যাল

image2

একে নাভি 

দুইয়ে রন্ধ্র 

তিনে তীব্র ফালাফালা মৃণ্ময়ীর ভীতি


তারপর, চোখের জল,

সরীসৃপ, নামে


কিশোরীর অগ্রন্থিত শরীর, আগে মেঘ ছিল

image3

                     যেন একাকিত্বের নিজে বলে কেউ হয়


                     লিকলিকে অনাদিগন্তহীন

                     ঘোর দিনের বেলায়

                     প্রেমভ্রষ্ট পথনারী

                     কে বিঁধে মরেছে কবে

                     ভুলে গেছে

image4

নিজের আঁখিগোলক দেখে আমাদের ঈষৎ অপরাধে রমণীদের উত্তল পেটের কথা মনে পড়ে


দৃশ্যের অনেক ভিতরে

মানুষের আকৃতি

ঘুমের ভঙ্গী শুরু হয়

image5

                         সোহাগ তোমার দূষণ খুঁটে খায়


                         তোমার শরীর খুলে

                         ছায়ার তালিম ছাদে

                         আকাশে ওড়াই


                         ডাক ডাক শব্দে

                        কার্নিশ ভেসে আছে