সাহিত্য পত্রিকা-ই বলা যেতে পারে...

অনির্বাণ চট্টোপাধ্যায়

নাম ভূমিকায়

  


ঘুম থেকে উঠে দেখি দিবাকর অনেকটাই উঠে এসেছে
কিন্তু আমি তো পূর্ব রাত্রে তালা দিয়ে ছিলাম সদর দরজায়
বুদ্ধ ডুপ্লিকেট চাবি দিয়ে খুলে দিয়েছে সিঁড়ির কুলকুণ্ডলিনী


২.

এই হাওয়াই চটির সাথে বেশ অনেকদিনের সম্পর্ক

একটি রবার গাছের ছায়ায় রাখা ছিল চটিদ্বয় 

সন্তান কিছুটা আমার মত কিছুটা ওর মায়ের মত



জবা ফুল প্রকৃতিরই অঙ্গ
বেশ ফুটে ওঠে আমার দম্ভ সম
প্রকৃতি চুপসে দেয়



ছোলার ছাতু ও নেড়িকুকুরের গায়ের রং প্রায় এক
ছাতু এক প্রকার উৎকৃষ্ট খাদ্য
নেড়ি এক প্রকার উৎকৃষ্ট প্রতিবেশী



ভীষণ ঝড় উঠবে
আকাশ হলুদ
গাঁদা ফুটবে কাল সকালেই



আমি মন্দোদরীর বন্ধু
ফলত রাবণের পরিচিত
সীতাকে চিনি না

image3